২৪ ঘণ্টা নজরদারির আওতায় ফেসবুক, ইউটিউবজাতিসংঘ মহাসচিবকে চিঠি দিয়ে যা বলল তালেবান৫ অক্টোবরই খুলছে ঢাবির হল১২-১৭ বছরের শিক্ষার্থীদের ফাইজারের টিকা দেওয়া হবে: স্বাস্থ্যমন্ত্রী২৪ ঘণ্টায় আরও ৩৫ জনের মৃত্যু
No icon

বাড়িতে নিয়মিত যোগাভ্যাস করেন? চোট পাওয়া থেকে সাবধান

অতিমারিতে স্বাস্থ্য ও মন সুস্থ রাখতে অনেকেই যোগের দিকে ঝুঁকেছেন। জিমে যাওয়া বা বাইরে হাঁটতে যাওয়ার সুযোগ এখন যেহেতু আগের তুলনায় অনেকটাই কম, তাই বাড়িতেই এক কোণে যোগাসন সেরে নিচ্ছেন বহু মানুষ। তবে একা একা যোগসন করতে গিয়ে নানা ধরনের বিপত্তি ঘটতে পারে সহজেই। তাই যোগাভ্যাস করলে অত্যন্ত সতর্ক থাকতে হবে। মাথায় রাখতে হবে কিছু নিয়ম।
১। যোগাভ্যাস শুরু করার আগে যে কোনও অন্য শরীরচর্চার মতোই স্ট্রেচিং করে নেওয়া আবশ্যিক। শরীরের বিভিন্ন মাংসপেশি শক্ত হয়ে থাকলে সব আসন করতে গেলেই অসুবিধা হবে। এতে আচমকা চোট পেয়ে যাওয়ার সম্ভাবনা অনেক বেশি।

২। ইউটিউব দেখে যোগাভ্যাস করার অনেক রকম সমস্যা রয়েছে। কোন আসনে আপনার উপকার হবে, সেটা একজন যোগ-প্রশিক্ষকই সবচেয়ে ভাল বলে দিতে পারবেন। আপনার কোনও রকম অসুখ থাকলে বা শরীরে কোনও রকম ব্যথা থাকলে বিশেষ কিছু আসনে আপনার উপকার হতে পারে। সেগুলি কী, আপনার জেনে নেওয়া প্রয়োজন। তাই বাড়িতে অভ্যাস করলেও শুরুতেই কোনও যোগ প্রশিক্ষকের কাছে শিখে নিন।
৩। যোগাভ্যাসের সময় শ্বাস-প্রশ্বাসের গুরুত্ব অপরিসীম। তাই ঠিক মতো নিঃশ্বাস-প্রশ্বাস করছেন কি না, সেটা খেয়াল রাখতে হবে। নয়তো বড় কোনও ক্ষতি হয়ে যেতে পারে।
৪। বালিশ, বেঞ্চ, কুশন; অনেকেই অনেক কিছুর সাহায্যে যোগাভ্যাস শুরু করেন। সেগুলি ব্যবহার করা কোনও রকম দুর্বলতার লক্ষণ নয়। তাই যত দিন না আত্মবিশ্বাস পাবেন, যে কোনও কিছুর সাহায্য ছাড়াই আসনগুলি করতে পারবেন, ততদিন পর্যন্ত ব্যবহার করুন। তবে পাশাপাশি এ-ও খেয়াল রাখতে হবে যেন সেগুলির প্রতি খুব বেশি নির্ভরশীল না হয়ে পড়েন।

৫। মনে রাখবেন যোগ কোনও রকম প্রতিযোগিতা নয়। নেটমাধ্যমে আপনার কোন বন্ধু কতটা কঠিন আসন রপ্ত করে ফেলতে পারলেন, কত তাড়াতাড়ি শরীর উল্টো করে নানা রকম আসন করতে পারলেন, সে দিকে নজর দেবেন না। নিজে যেই গতিতে যোগাসন করতে পারবেন, সেই গতিতেই করুন। যোগ আপনার জীবন আরও সহজ, আরও সুখকর বানানোর জন্য। বাড়তি চাপ দেওয়ার জন্য নয়।