ভূমিকম্পের জেরে মৃত্যু ছাড়িয়েছে ৪০০০মলদ্বীপে সন্তানদের সঙ্গে ছুটির মেজাজে শাহরুখবগুড়ায় ধর্ষণ চেষ্টাকালে আ’লীগ নেতার পুরুষাঙ্গ কেটে দেয়া হয়রাজধানীর সব ফ্লাইওভারে থাকা দেয়াল লিখন ও পোস্টার দুই সপ্তাহের মধ্যে অপসারণের নির্দেশ দিয়েছেন হাই কোর্ট৫৮ বছর বয়সী এক নারীকে ধর্ষণের পর হত্যার অভিযোগ
No icon

আবারও হাসপাতালে ভর্তি হতে পারেন খালেদা জিয়া

দুই-এক দিনের মধ্যে হাসপাতালে যেতে হবে বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়াকে। আরো বেশ কিছু পরীক্ষা-নিরীক্ষার প্রয়োজনীয়তা দেখা দিয়েছে তার শরীরে। খালেদা জিয়ার মেডিকেল বোর্ডের একজন সদস্য জানান, ম্যাডামের আগের জটিলতা নতুন করে দেখা দিয়েছে। বাসায় রেখে চিকিৎসা কঠিন হয়ে পড়েছে। এবার হাসপাতালে ভর্তি করানোর প্রয়োজন পড়তে পারে। লিভারের জটিলতা কাটছেই না। সবমিলিয়ে বোর্ড দ্রুত হাসপাতালে নেওয়ার পরামর্শ দিয়েছে। এখন অবস্থা স্থিতিশীল বলা যাবে না। বৃহস্পতিবার রাতে খালেদা জিয়ার ব্যক্তিগত চিকিৎসক ও বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান অধ্যাপক ডা. এজেডএম জাহিদ হোসেন বলেন, ম্যাডামের চিকিৎসায় গঠিত মেডিকেল বোর্ডের বৈঠকের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী-নতুন করে আরো বেশ কিছু পরীক্ষা-নিরীক্ষার কথা বলা হয়েছে। খুব শিগগিরই সেগুলো সম্পন্ন করা হবে। এই টেস্টগুলোর রেজাল্ট হাতে পাওয়ার পর পর্যালোচনা শেষে তার হার্টে থাকা অপর দুটি ব্লক এর বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেয়া হতে পারে।

বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় মেডিকেল বোর্ডের সর্বশেষ বৈঠকটি অনুষ্ঠিত হয়। সেখানে বিশেষজ্ঞ চিকিৎসক খালেদা জিয়ার স্বাস্থ্যের কয়েকটি রিপোর্ট নিয়ে পর্যালোচনা করেন।এর আগে গত সোমবার রাতে এভারকেয়ার হাসপাতালে শারীরিক পরীক্ষা-নিরীক্ষা শেষে বাসায় ফিরেন সাবেক প্রধানমন্ত্রী বেগম খালেদা জিয়া। ওই দিন বিকালে হাসপাতালে তার সাতটি পরীক্ষা করানো হয়। উন্নত চিকিৎসার জন্য বিএনপি চেয়ারপারসনকে বিদেশে নেওয়া প্রয়োজন বলে পুনরায় পরামর্শ দেয় মেডিকেল বোর্ড।এভারকেয়ার হাসপাতালের বিশেষজ্ঞ চিকিৎসক অধ্যাপক শাহাবুদ্দিন তালুকদারের নেতৃত্বে মেডিকেল বোর্ডের তত্ত্বাবধানে চিকিৎসা নিচ্ছেন তিনি। আর্থ্রাইটিস, ডায়াবেটিস, কিডনি, ফুসফুস, চোখের সমস্যাসহ নানা জটিলতায় ভুগছেন ৭৭ বছর বয়সী সাবেক এই প্রধানমন্ত্রী।